আইফোন কিনতে বাথটাব ভরা কয়েন নিয়ে হাজির

অ্যাপলের বাজারে আনা আইফোনের মধ্যে এক্সএস ও এক্সএস ম্যাক্স সবচেয়ে দামি দুটি মডেল। এ দুটি মডেলের আইফোন কেনার শখ আছে অনেকেই। বিক্রেতারাও আশা করছেন, এ ফোন ক্রেতাদের আকর্ষণ করবে। কিন্তু ক্রেতা যদি আইফোন কেনার জন্য বস্তাভর্তি কয়েন নিয়ে হাজির হন, তবে বিক্রেতা বিরক্ত হতেই পারেন।
সম্প্রতি এমন এক ঘটনা ঘটেছে রাশিয়ায়। আইফোন এক্সএস (২৫৬ জিবি) কিনতে সেখানকার একটি অনুমোদিত আইফোন বিক্রির দোকানে এক ক্রেতা বাথটাব ভরা কয়েন নিয়ে হাজির হন। ওই বাথটাবে এক লাখ রুবল ছিল। রাশিয়ায় ২৫৬ জিবি স্টোরেজ–সুবিধার আইফোন এক্সএস মডেলের দাম এক লাখ রুবল।
ক্রেতাকে অবশ্য ফিরিয়ে দেননি দোকানের কর্মীরা। তাঁরা ওই বাথটাব ভরা রুবল গুনতে শুরু করেন। কয়েন গোনা শেষ হলে তারপর ওই ক্রেতাকে আইফোন বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে প্রযুক্তিবিষয়ক ওয়েবসাইট ফোন এরেনার খবরে জানানো হয়।
অনেকেই নতুন আইফোনের বেশি দামের কারণে কিস্তিতে অর্থ পরিশোধের দিকে যান। কিন্তু কেউ কেউ নতুন আইফোন কিনতে এভাবেই অর্থ জমিয়ে রাখেন।
এ ঘটনা অবশ্য ২০১২ সালের আরেকটি ঘটনা মনে করিয়ে দিতে পারে। অ্যাপলের পেটেন্টভঙ্গের অভিযোগে স্যামসাংয়ের ১০০ কোটি ডলার জরিমানা হয়েছিল। ওই সময় খবর রটে, জরিমানার অর্থ পরিশোধে পাঁচ ট্রাক ৫ সেন্ট কয়েন অ্যাপলের সদর দপ্তরে পাঠিয়েছিল স্যামসাং। তবে খবরটি ভুয়া ছিল। যাঁরা এ ধরনের কয়েন জমিয়ে আইফোন কেনার কথা ভাবছেন, তাঁর আগে দোকানে গিয়ে কয়েন নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে নেবেন। তা না হলে পণ্ডশ্রম হতে পারে।

Enjoyed this article? Stay informed by joining our newsletter!

Comments
You must be logged in to post a comment.
Related Articles
About Author